মেবারের মহারানা প্রতাপ সিংহ প্রশ্নোত্তর PDF – মহারানা প্রতাপ সিংয়ের অজানা ইতিহাস

মেবারের মহারানা প্রতাপ সিংহ প্রশ্নোত্তর PDF: প্রতিবছর বিভিন্ন সরকারি চাকরির পরীক্ষায় মহারানা প্রতাপ সিংয়ের অজানা ইতিহাস PDF থেকে অনেক প্রশ্ন আসে। তাই আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি মহারাণা প্রতাপ বা প্রতাপ সিং PDF.

নিচে History of Maharana Pratap Singh PDF টি যত্নসহকারে পড়ুন ও জ্ঞানভাণ্ডার বৃদ্ধি করুন। মেবারের সিংহ: মহারানা প্রতাপ PDF টি সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ডাউনলোড করতে এই পোস্টটির নীচে যান এবং ডাউনলোড করুন।

মেবারের মহারানা প্রতাপ সিংহ প্রশ্নোত্তর PDF – মহারানা প্রতাপ সিংয়ের অজানা ইতিহাস

১. মহারানা প্রতাপ সিংহের বাল্য নাম কি ছিল?

উত্তর:- কিকা।

২. কোন দূর্গে রানা প্রতাপের জন্ম হয়েছিল?

উত্তর:- কুম্ভলগড় দূর্গ।

৩. হলদি ঘাটের যুদ্ধ কোন মাসে হয়েছিল?

উত্তর:- জুন মাস।

৪. হলদি ঘাটের যুদ্ধের আগে আকবর রানা প্রতাপের দরবারে কত জন দূতকে প্রেরন করেছিল?

উত্তর:- ৪ জন।

৫. রানা প্রতাপের মায়ের নাম কি?

উত্তর:- জয়ন্তা বাঈ।

৬. কোন দূর্গে রানা প্রতাপের রাজ্যাভিষেক হয়েছিল?

উত্তর:- গোগুন্দা দূর্গ।

৭. রানা প্রতাপের বিখ্যাত ঘোড়ার নাম কি?

উত্তর:- চৈতক।

৮. মান সিং রানা প্রতাপের দরবারে আকবরের দূত হয়ে এলে রানা প্রতাপ মান সিং এর সাথে অলোচনার জন্য কাকে প্রতিনিধি হিসেব পাঠান?

উত্তর:- রানা অমর সিং।

৯. আকবরের প্রতিনিধি মান সিং এর সাথে মেবার কর্তৃপক্ষের আলোচনা সভা কোথায় অনুষ্ঠিত হয়েছিল?

উত্তর:- উদয়সাগর ঝিলের পাড়ে।

১০. আকবর প্রেরিত একজন প্রতিনিধির সাথেই মহারানা প্রতাপ অলোচনা সভায় দেখা করেছিলেন। তিনি কে?

উত্তর:- টোডরমল।

১১. রানা প্রতাপ কোন বংশীয় রাজপুত ছিলেন?

 উত্তর:- সিশোদিয়া।

১২. রানা প্রতাপের কোন ভাই সর্বপ্রথম অকবরের পক্ষ অবলম্বন করেছিলেন?

উত্তর:- শক্তি সিং।

১৩. রানা উদয় সিং কাকে তার উত্তরাধিকারী মনোনীত করেন?

উত্তর:- জগমল।

১৪. হলদিঘাট যুদ্ধের সময় মেবার ও মুঘল পক্ষের সেনা কতজন ছিল?

উত্তর:- মেবার পক্ষে ৫০০০ জন ও মুঘল পক্ষে ৮০০০ জন (আব্দুল কাদির বদায়ুনির মতে)।

১৫. কোন ঐতিহাসিকের বিবরণ থেকে জানা যায় যে রাজপুত বাহিনীর আক্রমনে শাহী ফৌজ ছত্রভঙ্গ হয়ে গেছিল?

উত্তর:- আব্দুল কাদির বদায়ুনি।

১৬. হলদিঘাট যুদ্ধে শাহী বাহিনী ছত্রভঙ্গ হয়ে কোন নদীর পাড়ে পালিয়েছিল?

উত্তর:- বেনাস নদীর পার থেকে পায় ১৫ কি.মি দুরে পালিয়েছিল।

১৭. কোন গল্পের অবতারণা করে যুদ্ধক্ষেত্র ছেড়ে পালিয়ে যাওয়া মুঘল ফৌজকে ফের ফিরিয়ে আনা হয়েছিল?

উত্তর:- যুদ্ধক্ষেত্রে আকবর বিশাল শাহী ফৌজ নিয়ে আসছেন।

১৮. ফিরে আসা শাহী ফৌজ এবং রাজপুত বাহিনীর মধ্যে ভীষন যুদ্ধটি কোন জায়গায় হয়েছিল?

উত্তর:- রক্ততালাই (বেনাস নদীর তীরে খাণ্ডুর ও ভাগলগাও এর মধ্যবর্তী স্থান)।

১৯. আকবর প্রথম দূত হিসেবে রানা প্রতাপের দরবারে কাকে পাঠিয়েছিলেন?

উত্তর:- জালাল খান।

২০. উদয় সিংহের সময় মেবারের রাজধানী কোথায় ছিল?

উত্তর:- চিতোর।

২১. হলদিঘাট যুদ্ধের পরে রানা প্রতাপ কোথায় তার রাজধানি নির্মাণ করেন?

উত্তর:- চাওয়াণ্ড।

২২. রানা প্রতাপ সিংহের পুত্রের নাম কি?

উত্তর:- রানা অমর সিং।

২৩. হলদি ঘাট যুদ্ধের আগে রানা প্রতাপ সিংহকে ভয় পাওয়ানোর জন্য মান সিং মেবার সীমান্তে কোথায় ২ মাস ধরে অবস্থান করেছিলেন?

উত্তর:- মণ্ডলগড়।

২৪. হলদিঘাট যুদ্ধের সময় রানা প্রতাপ তার সেনা দলকে কটি ভাগে ভাগ করেছিলেন?

উত্তর:- ৪টি।

২৫. যুদ্ধে রানা প্রতাপের ঘোরা আহত হয়ে যাবার পরে কোন ভীল সেনাপতি রানা প্রতাপের ছদ্মবেশ ধরে যুদ্ধ করেছিলেন?

উত্তর:- ছালাবিদা।

২৬. হলদিঘাট যুদ্ধের পরে আকবর অসন্তুষ্ট হয়ে তার কোন সভাসদকে সাময়িকভাবে রাজদরবারে প্রবেশ নিষিদ্ধ করেছিলেন?

উত্তর:- মান সিং।

২৭. কোথাকার দরবারে বসে আকবর রানা প্রতাপের মৃত্যু সংবাদ পান?

উত্তর:- লাহোর।

২৮. অবুল ফজলের মতে রানা প্রতাপের হত্যাকারী কে?

উত্তর:- রানা অমর সিং।

২৯. কর্নেল টডের মতে কোন ঝিলের পাড়ে রানা প্রতাপের মৃত দেহ পাওয়া গেছিল?

উত্তর:- পিছোলা ঝিলের পাড়ে একটা ঝোপের মধ্যে।

৩০. আকবরের সাথে যুদ্ধের আগে উদয় সিং চিতরগড় দূর্গ ছেড়ে কোন শহরে আস্তানা গড়েছিলেন?

উত্তর:- কুম্ভলগড় দূর্গ।

৩১. আকবর উদয় সিংহের কাছ থেকে কোন দূর্গ ছিনিয়ে নিয়ে ছিলেন?

উত্তর:- চিতোরগড়।

৩২. উদয় সিংহের বিরুদ্ধে যুদ্ধজয় চরিতার্থ করার জন্য আকবরের নির্দেশে মুঘল সেনারা অনুমানিক কতজন মেবার বাসীকে হত্যা করেছিল?

উত্তর:- ৩০,০০০ জন।

৩৩. নব প্রতিষ্ঠিত রাজধানীতে কোন যুদ্ধাস্ত্র বাঁকাতে গিয়ে রানা প্রতাপ চোট পেয়েছিলেন?

উত্তর:- ধনুক।

৩৪. রানা প্রতাপের গেরিলা বাহিনীর আক্রমনের হাত থেকে মুঘল সেনাদের বাঁচানোর জন্য আকবর কোন কোন কাজ করেছিলেন?

উত্তর:- কোন কোন নগরীতে উঁচু উঁচু প্রাচীর নির্মাণ করেছিল,স্থানে স্থানে  সেনা ছাউনি গড়েছিল,কিছু কিছু রাস্তা-ঘাট বন্ধ করে দিয়েছিল।

৩৫. মৃত্যুর আগে রানা প্রতাপ কত বছর শান্তির সাথে মেবার শাসন করেছিলেন?

উত্তর:- ১২ বছর।

৩৬. কোন সালে আকবর রানা প্রতাপের মৃত্যু সংবাদ পান?

উত্তর:- ১৫৯৭ সাল।

৩৭. কোন গ্রন্থ থেকে জানা যায় যে রানা প্রতাপের মৃত্যু সংবাদ পাবার পরে আকবর কিছুক্ষনের জন্য বিমর্ষ হয়ে পরেছিলেন?

উত্তর:- মহারানা যশপ্রকাশ।

৩৮. সম্প্রতি কোন ইতিহাস গবেষক বিভিন্ন তথ্যের সাহায্য প্রমান করেছেন যে রানা প্রতাপ কোন যুদ্ধেই আকবরের কাছে পরাজিত হননি?

উত্তর:- ডা: কে.এস. শর্মা।

৩৯. সম্প্রতি কোন রাজ্যের পাঠ্যক্রমে অন্তর্ভুক্ত হতে চলেছে ‘আকবর নয়,রানা প্রতাপই মহান’?

উত্তর:- রাজস্থান।

৪০. আকবর কাকে তার তৃতীয় দূত হিসেবে রানা প্রতাপের দরবারে পাঠিয়েছিলেন?

উত্তর:- আমেদাবাদের রাজা ভগবন্ত দাস।

File Details:
File Name: মহারানা প্রতাপ সিংহ প্রশ্নোত্তর [www.gksolve.in]
File Format: PDF
Quality: High
File Size: 3 Mb
File Location: Google Drive

Click Here to Download

Leave a Comment